ঢাকা২৩শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৮ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ভূটানের রাজার সফরে জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসন ছিল সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থানে।

প্রতিবেদক
admin
মার্চ ২৮, ২০২৪ ৭:০২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ২৮মার্চ

কুড়িগ্রামে বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল পরিদর্শনে আসেন ভূটানের রাজা জিগমে খেসার নামগিয়েল ওয়াংচুক।জেলায় প্রথম কোন বিদেশি রাষ্ট্র প্রধানের আগমনে নিরাপত্বা জোরদারে জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের ভুমিকা ছিল সর্বোচ্চ।ভুটান রাজার সফর কালীন সময়ে জেলার গুরুত্বপূর্ণ পূর্ন স্থানে দায়িত্ব পালনে অনন্য ভুমিকা পালন করে জেলা পুলিশ। পুলিশসহ নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা অনান্য সকলের নিরলস পরিশ্রম আর কঠোর নিরাপত্তার মাধ্যমে সুষ্ঠভাবে ভুটানের রাজার প্রস্থানে খুশি সুশীল সমাজ ও জনপ্রতিনিধিরা।

২৮ মার্চ বৃহস্পতিবার দিনব্যাপী কুড়িগ্রাম জেলা সফর করেন ভূটানের মহামহিম রাজা জিগমে খেসার নামগিয়েল ওয়াংচুক।

কুড়িগ্রাম সফরে ভূটানের মহামহিম রাজাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান জেলা প্রশাসক মো: সাইদুল আরীফ ও জেলা পুলিশ সুপার আল আসাদ মো: মাহফুজুল ইসলাম। মহামহিম রাজাকে কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশের একটি চৌকশ নারী টিম সুসজ্জিতভাবে গার্ড অব অনার প্রদান করেন। বিভিন্ন স্তরের পুলিশি নিরাপত্তা বলয়ে মহামহিম রাজা প্রস্তাবিত ভুটানিজ বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল পরিদর্শন করেন।

মহামহিম রাজার কুড়িগ্রাম সফরে বিভিন্ন পর্যায়ে উপস্থিত ছিলেন মাননীয় নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, মাননীয় তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ আলী আরাফাত, মাননীয় সংসদ সদস্য কুড়িগ্রাম-২ ডা: হামিদুল হক খন্দকার, মাননীয় সংসদ সদস্য কুড়িগ্রাম-৪ বিপ্লব হাসান পলাশ, বেজা’র চেয়ারম্যান শেখ ইউসুফ হারুন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মহাপরিচালক নাফিউল হাসান, মেয়র কাজিউল ইসলাম সহ অনেক সম্মানিত অতিথি। মহামহিম রাজার সকল অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মোঃ সাইদুল আরীফ, পুলিশ সুপার আল আসাদ মোঃ মাহফুজুল ইসলাম।

কুড়িগ্রাম বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে উঠলে এ জেলার মানুষের ভাগ্য উন্নয়নের আমুল পরিবর্তন আসবে।জেলার অর্থনৈতিক ও সামাজিক উন্নয়নের দারিদ্র্যতার গ্লানি মুচে যাবে।হাজার হাজার মানুষের হবে কর্মসংস্থান।খাদ্য,শিক্ষা স্বাস্থ্য চিকিৎসা, কমর্সংস্থানের সুযোগ তৈরি হবে এতে করে কুড়িগ্রাম জেলার মানুষজন হবে আরো স্বয়ংসম্পূর্ণ।সে ক্ষেত্রে কুড়িগ্রামে বিদেশি রাষ্ট্র প্রধানের অর্থনৈতিক অঞ্চল পরিদর্শন ছিল একটি চ্যালেঞ্জমুখী অধ্যায়।গত কয়েকদিন ধরে জেলা পুলিশের প্রচেষ্ঠায় ভুটান রাজার সফর সাফল্যমন্ডিত করতে জনসাধারনের স্বপ্ন বাস্তবায়নে পুলিশের ভুমিকা ছিল প্রশসংসার দাবিদার।
জেলা পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, ভুটানের রাজা জিগমে খেসার নামগিয়েলের সফর ছিল জেলার প্রথম কোন রাষ্ট্র প্রধানের রাষ্ট্রীয় সফর।দু দেশের পারস্পরিক সম্পর্ক আরো বেগবান করতে নিঃসন্দেহে এই সফরটি ছিল তাৎপর্যপূর্ণ।ফলে বিদেশী রাষ্ট্র প্রধানের এই সফরে জেলা পুলিশ ছিল সর্বোচ্চ সতর্ক, কাঠালবাড়ি থেকে সোনাহাট পর্যন্ত নিয়োজিত করেছিল সহস্রাধিক পুলিশ, ভেন্যুসমূহে ছিল বিভিন্ন স্তরের পুলিশী নিরাপত্তায়।

কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশ সুপার আল আসাদ মোহাম্মদ মাহফুজুল ইসলাম বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরিকল্পনায় কুড়িগ্রামের অপার সম্ভাবনা ও ব্যাপক কর্মসৃজনের দ্বার উন্মোচনের এই পর্যায়ে ভুটানের মহামহিম রাজার এই সফর কুড়িগ্রামের জন্য অত্যন্ত তাৎপর্য বহন করে। টেকসই উন্নয়ন ও নিরাপত্তায় জেলা পুলিশ মহামহিমের এই সফরকে অত্যন্ত অগ্রাধিকারের ভিত্তিতে নিয়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহন করেছে। পুলিশি নিরাপত্তা ব্যবস্থায় ধৈর্য্য ও সহযোগিতার জন্য কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশ কুড়িগ্রামের সম্মানিত নাগরিকদের ধন্যবাদ জানান।